এস-৪০০ এর ‘প্রতিদ্বন্দ্বী’ ক্ষেপণাস্ত্রের সফল পরীক্ষা চালিয়েছে তুরস্ক

তুরস্ক আকাশ প্রতিরক্ষায় দূরপাল্লার সাইপার ক্ষেপণাস্ত্র ব্যবস্থার সফল পরীক্ষা চালিয়েছে। নতুন এই প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা ৩৬০ ডিগ্রি অ্যাঙ্গেলে দিনে ও রাতে টার্গেট শনাক্তকরণ ও গুলি করতে সক্ষম।

দেশটির প্রেসিডেন্সি অব ডিফেন্স ইন্ড্রাস্ট্রিজের (এসএসবি) প্রধান ইসমাইল দেমির বরাতে এই খবর জানিয়েছে ডেইলি সাবাহ।

খবরে বলা হয়েছে, তুরস্কের নতুন এই আকাশ প্রতিরক্ষা ব্যবস্থাটি নানা পরীক্ষা শেষে ২০২৩ সালে ব্যবহারের জন্য সেনাবাহিনীকে দেওয়া হতে পারে। সাইপার প্রকল্পটি চলছে তুরস্কের প্রতিরক্ষা জায়ান্ট হিসেবে বিবেচিত আসেলসান, রকেতসান এবং তুরস্কের বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি গবেষণা পরিষদের প্রতিরক্ষা শিল্প গবেষণা ও উন্নয়ন ইন্সটিটিউটের (এসএজিই) অধীনে।
দেশটির কর্মকর্তারা আশা করছেন, তাদের তৈরি নতুন এই প্রযুক্তিটি রাশিয়ার এস-৪০০ ক্ষেপণাস্ত্র ব্যবস্থার সাথে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করতে সক্ষম হবে।

দেশটির প্রেসিডেন্সি অব ডিফেন্স ইন্ড্রাস্ট্রিজের (এসএসবি) প্রধান ইসমাইল দেমি বলেন, তুরস্ক নতুন অস্ত্র তৈরি অব্যাহত রাখবে। দেশের অন্তত ছয়টি পর্যন্ত ভিন্ন ভিন্ন আকাশ প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা থাকবে। এছাড়া কুরকুট, সানগার, হিসার আকাশ প্রতিরক্ষা ব্যবস্থার উন্নয়নে কাজ চালিয়ে যাচ্ছে তুরস্ক।

ইসমাইল দেমি আরও বলেন, তুরস্কের প্রতিরক্ষা শিল্প দেশের নিরাপত্তার জন্য স্থল, আকাশ, সমুদ্র, মহাকাশ এবং সাইবার স্পেসের ক্ষেত্রে কাজ করে চলেছে। আমরা বেশ কিছু ক্ষেত্রে বিশ্বের নেতৃত্ব দেওয়া দেশের একটি এবং আমরা প্রতিযোগিতামূলক পণ্য উৎপাদন করছি। যদিও আমরা সব সময় বলে আসছি, আমাদের লক্ষ্য প্রতিরক্ষা শিল্পে স্বয়ংসম্পূর্ণ হওয়া।